মা দূর্গার কাছে আর্শিবাদ করছি করোনা ভাইরাস থেকে আমাদের সকলকে মুক্ত করে নির্র্মল করে দেয় – শ্রী রঞ্জিত মন্ডল

রিপোর্ট নারায়ণগঞ্জ ২৪ : ষষ্ঠী পূজার মধ্য দিয়ে শনিবার (১ অক্টোবর) থেকে শুরু হয়েছে বাঙালি সনাতন ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা। বিশুদ্ধ সিদ্ধান্ত পঞ্জিকা মতে, বুধবার বিজয়া দশমীতে প্রতিমা বিসর্জনের মধ্য দিয়ে শেষ হবে পাঁচদিনের এ মহোৎসব। পূরাণ মতে, দুর্গাপূজার সঠিক সময় হলো- বসন্তকাল। কিন্তু বিপাকে পড়ে রামচন্দ্র, রাজা সুরথ ও বৈশ্য সমাধি বসন্তকাল পর্যন্ত অপেক্ষা না করে শরতেই দেবীকে অসময়ে জাগ্রত করে পূজা করেন। সেই থেকে অকাল বোধন হওয়া সত্বেও শরতকালে দুর্গাপূজার প্রচলন ঘটে।

এরই ধারাবাহিকতায় নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লায় ফতুল্লা ইউনিয়নের বারৈভোগ এলাকার অতি প্রচিনতম শী শী রাধা কৃষ্ণ মন্দির ও শী শী দূর্গা মন্দিরে প্রতিবছরের ন্যায় অনুষ্ঠিত হবে শারদীয় দূর্গা পূজা।

শনিবার ( ১ অক্টোবর) বিকেলে শী শী রাধা কৃষ্ণ মন্দির ও শী শী দূর্গা মন্দিরের সার্বিক তত্বাবধান কারী পূজা উদযাপন পরিষদ নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলা ও ফতুল্লা থানা শাখার সভাপতি শ্রী রঞ্জিত মন্ডল জানিয়েছেন, এবারের শারদীয় দূর্গোৎসব প্রসাশনের সহযোগিতায় অত্যান্ত শান্তিপূর্ণ ভাবে অনুষ্ঠিত হবে।

শ্রী রঞ্জিত মন্ডল জানান, নারায়ণগঞ্জ বাসীকে শারদীয় শুভেচ্ছা জানাচ্ছি। আমি দলমত নির্বিশেষে সকলকে আহবান জানাচ্ছি শারদীয় দূর্গোৎসবে অংশ গ্রহনের। বিগত বছর গুলোতে মহামারি করোনা ভাইরাসের কারনে আমরা শারদীয় দূর্গোৎসব পালন করতে পারিনি। মা দূর্গার কাছে আর্শিবাদ করছি এই মহামারি করোনা ভাইরাস থেকে আমাদের সকলকে মুক্ত করে নির্র্মল করে দেয়। পাশাপাশি বিশে^ ইউক্রনে রাশিয়া যুদ্ধ চলছে তাই মা দূর্গার কাছে আরো আর্শিবাদ করছি সারা বিশ^ যেন শান্তিময় হয়। আজ থেকে দশমী পর্যন্ত আমাদের এই পূজা চলবে। নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলায় মোঠ ৭৭ টি পূজী মন্ডপ তৈরী করা হয়েছে। স্থানীয় প্রসাশন কঠোর নজরদারিতে রেখেছেন প্রতিটি মন্ডপ গুলোতে। পাশাপাশি আমরা প্রতিটি মন্ডপে সিসি ক্যামেরা লাগানোর ব্যবস্থা করেছি। নারায়ণগঞ্জ – ৫ আসনের সাংসদ একেএম সেলিম ওসমান এবং নারায়ণগঞ্জ – ৪ আসনের সাংসদ একেএম শামীম ওসমান আমাদের মন্ডপ গুলোতে সকল প্রকাল সুযোগ সুবিদা দিচ্ছেন যাতে করে আমরা এবারের শারদীয় দূর্গোৎসবটি অত্যান্ত ভাল ভাবে পালন করতে পারি।