সমাজতান্ত্রিক শ্রমিক ফ্রন্টের একবেলা খাবার কর্মসূচি ‘কমিউনিটি কিচেন’ এর কার্যক্রম শুরু

রিপোর্ট নারায়ণগঞ্জ ২৪ : কর্মহীন মানুষের জন্য একবেলা খাবারের কর্র্মসূচি হিসেবে ‘কমিউনিটি কিচেন’ এর কার্যক্রম সমাজতান্ত্রিক শ্রমিক ফ্রন্ট নারায়ণগঞ্জ জেলার উদ্যোগে এ কার্যক্রম অনুষ্ঠিত হয়।

মঙ্গলবার (২০এপ্রিল) বিকেলে সদর উপজেলার ফতুল্লার গাবতলী-পুলিশ লাইন এলাকায় ’কমিউনিটি কিচেন’ কার্যক্রম শুরু হয়।

এ সময় নেতৃবৃন্দ বলেন, করোনা ভাইরাস মোকাবিলায় সরকার লকডাউন ঘোষণা করেছে। কিন্তু যে মানুষ ঘরে থাকবে তাদের জন্য প্রয়োজনীয় খাদ্য বা অর্থের সরকারি ঘোষণা খুবই অপ্রতুল। লকডাউনে সবচেযে বেশি সমস্যায় পড়েছে যারা দিন এনে দিন খায় তারা। ফলে বর্তমান লকডাউনে কর্মহীন মানুষগুলো অনাহারে অর্ধাহারে দিনাতিপাত করছে। এদের কথা বিবেচনা করেই সমাজতান্ত্রিক শ্রমিক ফ্রন্ট কমিউনিটি কিচেনের কার্যক্রম শুরু করেছে। আমাদের সামর্থ কম, তারপরও সীমিত সক্ষমতা নিয়েই পুরো লকডাউনের সময় আমরা এই কার্যক্রম চালিয়ে যাবো। পর্যায়ক্রমে আমরা অন্যান্য শিল্পাঞ্চলেও এ উদ্যোগ নিবো।

তারা আরো বলেন, পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে লকডাউনের সময় নাগরিকদের জন্য পর্যাপ্ত অর্থ বরাদ্দ করা হয়। কিন্তু আমাদের দেশের সরকার লোক দেখানো কিছু সহায়তার ঘোষণা দিয়েছে যা লকডাউনে কর্মহীনদের সামান্য চাহিদাও পূর্ণ করবে না। বাস্তবে ধনীক শ্রেণির এই সরকার শ্রমজীবীদের প্রতি কোন দায় অনুভব করেন না। নেতৃবৃন্দ লকডাউনে পরিবার প্রতি এক মাসের খাদ্য ও ৫০০০ টাকা করে বরাদ্দ করার জন্য সরকারের প্রতি দাবি জানান।

সংগঠনের স্থানীয় কার্যালয়ে খাবার বিতরণকালে এ সময় উপস্থিত ছিলেন, সমাজতান্ত্রিক শ্রমিক ফ্রন্টের জেলা সভাপতি আবু নাঈম খান বিপ্লব, গার্মেন্টস শ্রমিক ফ্রন্টের জেলা সভাপতি সেলিম মাহমুদ, সাধারণ সম্পাদক হাসনাত কবীর, সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের নারায়ণগঞ্জ জেলার সাধারণ সম্পাদক বেলাল হোসাইন সহ প্রমুখ।